এন্ড্রয়েড ফোনের হোমস্ক্রিনে নোট যুক্ত করার নিয়ম।



আপনারা সবাই কেমন আছেন? আশা করি আল্লাহর রহমতে অনেক ভাল আছেন। আমিও আপনাদের দোয়ায় অনেক ভাল আছি। অনেকদিন থেকে কন্টেন্ট লেখা হচ্ছে না। তাই আজকে লিখতে বসলাম। আশা করি এখন কন্টিনিউ লিখতে পারবো। তাহলে চলুন আজকের পোস্ট শুরু করা যাক :

 

বাজে কমেন্টকারিদের উদ্দেশ্যে :-

আরে থামেন আপনি যেটা ভাবতেছেন আমি সেটা লিখতে বসিনি, আমি বলছি যে আপনারা সবাই কমেন্ট করবেন। সেটা গালি, ভালো অথবা খারাপ যেটাই হোক না কেন। পোস্ট যেরকম হবে সেরকম কমেন্ট কামনা করি। কারণ কারো ভুল ধরিয়ে দেওয়া ছাড়া নিজে কেউ সহজে ভুল বুঝতে পারে না। তাই আপনাদের মতামত কামনা করি।

দ্বিতীয়ত, এটা আমি অথর উদ্দেশ্যে বলতেছি। যেহেতু আমরা একই প্লাটফর্মে কাজ করি, তাই সেখানে আমাদের একটু মনোমালিন্য বা কথা কাটাকাটি হতে পারে। এটা নিয়ে অভিমান করে বসে থাকার কিছু নেই। আর আমি আমার ভুল একান্তভাবে স্বীকার করছি। আশা করি পরবর্তীতে হবে না। আর কথা না বাড়িয়ে চলুন আজকের পোস্ট শুরু করি :

 

আমাদের দৈনন্দিন জীবনে কতই না কাজ থাকে। তাদের মধ্যে এগুলো রয়েছে খুবই প্রয়োজন, আবার কতগুলো সাধারণ। আমরা কাজের ফাঁকে ভুলে যাই কোনটি করণীয় ছিল। এজন্য আমাদের প্রত্যেকটা জিনিস নোট করে রাখা প্রয়োজন। কিন্তু যদি কাজের কথা এটাই না মনে থাকে তাহলে নোট এর কথা কি করে মনে থাকবে?

হ্যাঁ যাদের এরকম সমস্যা রয়েছে। এজন্য একটা সলুশন আছে। এটা হচ্ছে ফোনের হোমস্ক্রিনের নোট করে রাখা। কারণ আমরা সব সময় ফোন চালাই। আর ফোন চালালে যখন আমরা ফোনটা খুলব তখনই নোট টা দেখতে পারবো। এই নোট আমরা বিভিন্ন কাজে ব্যবহার করতে পারি। আমি কিছুটা এর ভালো দিক এবং খারাপ দিক তুলে ধরতেছি।

 

এটি ব্যবহারের ভালো দিক :-

এটি যে আমাদের শুধুমাত্র কাজ নোট করে রাখা এমন নয়। ইচ্ছা করলে এটি আপনি বিভিন্ন ভাবে কাজে লাগাতে পারবেন। যেমন ধরেন আপনার পড়ালেখার কাজে। যাদের বুদ্ধি ঠিক আমার মত, মানে বলতে চাচ্ছি যে সহজে কোন কিছু মুখস্ত হতে চায় না। সেটা বারবার পড়তে হয়। আপনার জন্য এটা অনেক ভালো একটা জিনিস। এখানে আপনি আপনার প্রয়োজনীয় কিছু লিখে রাখতে পারেন। এবং আপনি যতবারই আপনার ফোনটা খুলবেন, খোলার পর সামনেই নোটটা আর দেখতে পারবেন। আর সেটা একবার পড়ে নিবেন। ব্যাস যতবার ফোনটা খুলবেন ততবার পড়বেন। দেখবেন এমনি হয়ে যাবে । এটা আপনাদেরকে এমনিতেই বলতেছি না। এটা সরাসরি আমার এক্সপেরিয়েন্স থেকে বলতেছি। যেমন নিচের স্ক্রিনশটটা লক্ষ্য করুন। আমি এখানে কিছুটা পর্যায় সারণির মুখস্ত করতেছি। কিন্তু মনে না থাকার দরুন এখানে লিখেছি।

দিনে অন্তত ৫০ বারেরও বেশি ফোন খোলা হয়। তাই যদি আমি পঞ্চাশেবারই এটা পড়ি তাহলে আমার অনেকটা মুখস্ত হয়েছে আর কথা। অর্থাৎ বলতে পারেন এটি আপনাকে অনেকটা সাহায্য করবে।

 

এটি ব্যবহারে খারাপ দিক

এটি ব্যবহারের কোন খারাপ দিক নেই, এটি ব্যবহারের জন্য সাধারণ কিছু সমস্যা আছে। তাদের মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো আপনার হোম স্ক্রিন লুক। এটি ব্যবহারে আপনার ফোন স্ক্রিন লুকটা অনেক খারাপ হয়ে যেতে পারে। যেটা আপনার কাছে দেখতে অতটা ভালো নাও লাগতে পারে। তবে কথায় আছে কিছু পেতে হলে কিছু দিতে হয়। যাইহোক, এটার সৌন্দর্য বাড়ানোর আর একটা উপায় আছে, আপনি আপনার লেখাগুলো কে ডিজাইন করুন। যেমন নিচের স্ক্রিনশট লক্ষ্য করুন,

 

দেখুন আগে টার চেয়ে এটা অনেক সুন্দর দেখাচ্ছে ।

যাইহোক, হোম স্ক্রিনে এভাবে নোট রেখে পড়া টা অনেক আজব, মাঝে মাঝে আজব হওয়াটাও ভুল কিছুই নয় 😁

 

অ্যাপস ইনফরমেশন এবং ডাউনলোড :

এই অ্যাপটি অনেক সুন্দর। আর আমি মনে করি এখানে প্রিমিয়াম বা মুড এর কোন প্রয়োজন নেই। কারন আমি এখন পর্যন্ত এখানে কোন অ্যাড দেখিনি। আর এখানে ফ্রিতেই অনেক ভালো ভালো ডিজাইন রয়েছে। যে কারণে আপনার প্রিমিয়ারের প্রয়োজন নেই।

Information :

  • Version :4.3.4
  • pdated on :Jan 24, 2022
  • Required OS :Android 5.0 and up
  • Size :12 MB

Download : Playstor

 

ব্যাবহার :

প্রথমে অ্যাপ টিতে গিয়ে যা নোট করতে চান টা লিখুন।তার পর আপনি আপনার ফোন এর widgets এ যান। অথবা আপনার হোম স্ক্রিনের লং ট্যাপ করুন। তারপর নিচের ss দেখুন।

 

তারপর সেখান থেকে আপনি এই অ্যাপটিকে খুঁজে বের করুন। এবং সেখান থেকে নোট এ ঢুকুন।

ঢোকার পর দেখুন আপনার নোটটি শো করতেছে। সেখান থেকে ক্লিক করে অ্যাড করে নিন।

তারপর ব্যাক বাটন প্রেস করুন।

তারপর লেখাটির উপর লং প্রেস করে আপনার রীতিমতো বড় ছোট করে নিন। যেটা করলে আপনার সুন্দর দেখায়। নিচের স্ক্রিনশট লক্ষ্য করুন।

 

তাহলে বন্ধুরা আজকে এ পর্যন্তই। দেখা হবে পরবর্তী পোস্টে।





Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button