গুগল ইফেক্ট বা ডিজিটাল অ্যামনেসিয়া কী?


Hello ট্রিক বিডি বাসি কেমন আছেন আপনারা সবাই আশা করি সবাই আল্লাহর রহমতে ভাল আছেন আমিও ভাল আছি তো আবারো আজকে একটি নতুন আটিকে নিয়ে আপনাদের মাঝে হাজির হলাম আশা করি আপনারা আজকের আর্টিকেলটিও প্রতিবারের ন্যায় উপভোগ করবেন তাহলে চলুন কথা না বাড়ি আজকে আর্টিকেলটি শুরু করি।

তথ্য অনুসন্ধানের ক্ষেত্রে আমাদের নিত্য দিনের সঙ্গী হল গুগল যে কোন প্রয়োজনে আমরা গুগলের তথ্য সংগ্রহ করে থাকি আর এটি হয়তো আপনার কাছে নতুন কিছুই না কিন্তু আজকের আলোচনার মূল টপিকটি আপনার কাছে নতুন হতে চলেছে।

তথ্য প্রযুক্তির উপর নির্ভরশীলতার কারণে মানুষ জীবনে অনেক রকম সমস্যা হয়ে থাকে কথা বলতেছি আজকের এমন একটি সমস্যা সম্পর্কে যেটি মানুষকে তার মস্কিস্কের দীর্ঘমেয়াদে তথ্য ধরে রাখার জন্য বাধা দেয়।

গুগল ইফেক্ট এর নাম শুনেছেন? অনেকগুলো গুগল ফিশারের নাম শোনা হলেও কিন্তু আপনি google ইফেক্ট সম্পর্কে হয়তো আগে শুনেননি এটিকে অনেকেই অন্য নামে জেনে যেটি হল ডিজিটাল অ্যামনেসিয়া।

আজকের আর্টিকেলটিতে আমি এ বিষয় নিয়ে আপনাদের সুস্পষ্ট ধারণা নিতে চেষ্টা করব আশা করি আজকে এই আর্টিকেলটিতে আপনারা আরও একটি অজানা বিষয় সম্পর্কে পুরোপুরি ধারণা পেয়ে যাবেন।

গুগল ইফেক্ট কি?

ইউনিভার্সিটি অফ বার্মিংহামের এক গবেষণায় বলা হয়, অনেক মানুষ তথ্য আত্মস্থ করার পরিবর্তে তারা সেগুলো কম্পিউটার বা সার্চ ইঞ্জিনে খোঁজে।

আর সার্চ ইঞ্জিনে খোঁজার এই প্রবণতাকেই বলা হয় গুগল ইফেক্ট। গুগল ইফেক্টের আরেকটি নাম ডিজিটাল অ্যামনেসিয়া।

ধরুন আপনি যেকোনো বিষয়ে সবার আগে গুগলে সার্চ করে দেব সেখান থেকে তথ্য সংগ্রহ করার চেষ্টা করি যখন আপনি এভাবে আপনার মস্তিষ্কে তথ্য দিতে থাকবেন তখন একটি সময় আপনার মস্তিষ্ক এই তথ্যগুলো দীর্ঘ মেয়াদে সংরক্ষণ করতে ব্যর্থ হবে। আর এটাই হলো গুগল ইফেক্ট।

ডিজিটাল অ্যামনেসিয়া হচ্ছে মস্কিস্কের দীর্ঘমেয়াদে তথ্য ধরে রাখার ব্যর্থতা। এই ইফেক্টের নানা ধরণের প্রভাব রয়েছে।

এই ইফেক্ট থেকে মুক্তির করণীয়

  • এই ইফেক্ট যেহেতু মোবাইল থেকে শুরু হয় সে তো আপনারা বুঝতে পারছেন এই এফেক্ট থেকে মুক্তি পাওয়ার উপায় গুলো কি কি হতে পারে।
  • তথ্য সম্পর্কে গুগলের উপর নির্ভরশীল না হওয়ার সাজেশন রইল সব সময় মোবাইল থেকে নিজেকে বিরত রাখার চেষ্টা করবেন।
  • সকল তথ্যই ইলেকট্রনিক ডিভাইসের শো না করে আপনি চাইলে সেগুলো কাগজে কপি করতে পারেন।

আপনারা এই ইফেক্ট থেকে নিজেকে রক্ষা করতে পারেন আসলে আমরা আমাদের স্বাস্থ্যের প্রতি সচেতন হই এবং ভালো স্বাস্থ্যের অধিকারী হই।

আরো পড়ুনঃ Free Internet 2023

আরো পড়ুনঃ Insurance development and regulatory authority of bangladesh

দেখা হচ্ছে নতুন কোনো আর্টিকেল এসে পর্যন্ত ভালো থাকুন সুস্থ থাকুন এই ওয়েবসাইটের সঙ্গেই থাকুন আল্লাহ হাফেজ।





Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button