সফল ফ্রিল্যান্সার হওয়ার আগে যে বিষয় গুলো মাথায় রাখতে হবে।জেনে নিন।


  • আসসালামুআলাইকুম

সবাই কেমন আছেন? আশা করি সবাই অনেক ভাল আছেন। Trickbd এর সাথে সবাই নিয়মিত থাকবেন,যাতে সকল প্রকার আপডেট পেতে পারেন।

ফ্রিল্যান্সিং করার ইচ্ছা ছাত্র জীবনে বেশি আগ্রহ জন্মে। অনেকের সপ্ন ফ্রিল্যান্সার হওয়ার। আসলে একজন সফল ফ্রিল্যান্সার মাসে লাখ লাখ টাকা আয় করে থাকেন। অনেকে ভাবেন এটি মিথ্যা কথা, কিন্তু আসলে সত্যি টা জানে না যে ফ্রিল্যান্সিং করে মাসে লাখ টাকা আয় করা যায়।
আজকে আপনাদের জানাব,একজন সফল ফ্রিল্যান্সার হওয়ার আগে যে বিষয় গুলো মাথায় রাখতে হবে।
আশা করি সম্পন্ন আর্টিক্যালটি মনোযোগ সহকারে পড়বেন।

এমন লোক অনেক পাওয়া যাবে যে মাসে লাখ টাকা ইনকাম করছে ফ্রিল্যান্সিং করে।  কিন্তু কাউকে বলছে না।

ফ্রিল্যান্সার হবার আগে কিছু বিষয় মাথায় রেখে মাঠে নামতে হবে।
ফ্রিল্যান্সার হবার আগে যে বিষয় আপনার মাঝে থাকতে হবে সেটা হলো ধৈর্য। কারন ধৈর্য ছাড়া কখনো ফ্রিল্যান্সার হওয়া যায়না। আপনি খোজ নিয়ে দেখেন একজন সফল ফ্রিল্যান্সার এর সফল হওয়ার পিছনে রয়েছে অনেক ধৈর্য।
শুধু ধৈর্য থাকলেও চলবে না,এর পাশাপাশি থাকতে হবে প্রবল মনোবল ও ইচ্ছাশক্তি। ইচ্ছা যদি অটুট থাকে তাহলে  অবস্যই সফল হওয়া যায়। আমাদের এই বাংলাদেশে হাজার হাজার ফ্রিল্যান্সার রয়েছে যারা অনেক চেস্টা,শ্রম,ইচ্ছা, ধৈর্য এর ফলে সফল হয়ে লাখ লাখ টাকা আয় করছেন মাসে।

উপরের বিষয় গুলো মাথায় রাখলে আপনি ও একদিন সফল ফ্রিল্যান্সার হতে পারবেন।
এর পর আপনাকে অবস্যই একটি ভাল কোয়ালিটি উচ্চ কনফিগার এর পিসি বা ল্যাপটপ কিনতে হবে। এজন্য ভাল জানা শোনা লোকদের থেকে পরামর্শ নিয়ে কিনতে পারেন।
এর পর হাই স্পীড এর নেট কানেকশন থাকতে হবে। পিসি এবং নেট স্পীড অবস্যই ভাল কোয়ালিটি লাগবে। কারন সকল ধরনের কাজ যেন আপনি দ্রুত গতিতে করতে পারেন।

তারপর আপনাকে ফ্রিল্যান্সিং শিখতে হবে৷ ফ্রিল্যান্সিং শেখার জন্য আপনাকে অবস্যই ভাল কোনো প্রতিষ্ঠান থেকে ট্রেনিং করতে হবে। কারন ট্রেনিং ছাড়া কখনো ফ্রিল্যান্সিং শিখতে পারবেন না। আপনাকে যেকোন এক ক্যাটাগরি বেছে নিতে হবে। এবং ওই এক ক্যাটাগরির দিকে ফোকাস করে এগিয়ে যেতে হবে। একটির উপর ফ্রিল্যান্সিং ট্রেনিং শেষ করে এবার কাজ খোজার পালা।এজন্য আপনাকে বিভিন্ন ওয়েবসাইট আছে সেখানে কাজ খুজতে হবে৷ আপনার দক্ষতা ভাল থাকলে অবস্যই আপনি কাজ পাবেন। এবং সকল ফ্রিল্যান্সার দের মতো আপনি ও মাসে লাখ টাকা আয় করতে পারবেন।

আসলে সফল ফ্রিল্যান্সার হবার জন্য অনেক পথ পাড়ি দিতে হবে। মাথায় রাখতে হবে যে আমার ফ্রিল্যান্সার হতেই হবে।অনেকে আছে একটু পথ এগিয়ে স্থির হয়ে যায়। আসলে তাদের জন্য নয়, তাদের দ্বারা কখনো ফ্রিল্যান্সিং করা সম্ভব নয়। একটি কথা মাথায় রাখতে হবে,চেস্টা করলে সব ই সম্ভব। আপনি একটু চেস্টা করেন আপনি ও একজন দক্ষ ফ্রিল্যান্সার হতে পারবেন।

মাস্টার কার্ড বা এটিএম কার্ড আপনার জন্য অবস্যই দরকার। আপনি ফ্রিল্যান্সিং করার জন্য যে গুলো আপনার জন্য দরকার সে গুলো আপনাকে সংগ্রহ করতেই হবে। অভিজ্ঞ কোনো লোকের থেকে আপনি সকল কিছু ধারনা নিতে পারেন, যে ফ্রিল্যান্সিং করার জন্য কি কি দরকার।  আপনি যখন বিদেশি কোনো বায়ার এর কাজ করে দেবেন,সে যখন আপনাকে পেমেন্ট করবে সেটা ডলার হিসাবে দিবে। এজন্য আপনাকে মাস্টার কার্ড বা এটিএম কার্ড দরকার হবে। এজন্য এগুলো আগে থেকে সংগ্রহ করে রাখবেন। হয়তো প্রথম প্রথম আপনি দক্ষ হয়েও কাজ না ও পেতে পারেন। কিন্তু আপনাকে হাল ছাড়া যাবে না। হঠাৎ একদিন দেখবেন আপনি অনেক ভাল কাজ পেয়ে গেছেন। তখন আপনি যদি বায়ার কে সুন্দরভাবে কাজ করে দিতে পারেন তাহলে বায়ার আপনাকে ৫ স্টার দিবে। এবং তখন আপনাকে অন্য বায়ার কাজ দিবেন, কারন দেখবে যে আপনি কাজ ভালভাবে করে জমা দিয়েছেন। এজন্য আপনি ভালভাবে ট্রেনিং শেষ করে মাঠে নামেন, একদিন আপনে সফল হবেন।

প্রথমে আপনাকে টাকা খরচ করতে হবে, কিন্তু যখন টাকা হাতে আসা শুরু করবে তখন দেখবেন আপনার খরচ এর কয়েক গুন টাকা আপনার হাতে এসে গেছে অল্পদিনে। এজন্য ইচ্ছাটা প্রবল থাকতে হবে।

আপনার যদি ইচ্ছা থাকে আপনি ফ্রিল্যান্সিং করবেন,তাহলে চেস্টা করুন, ধৈর্য ধরুন, কাজ চালিয়ে যান আপনি ও একদিন হতে পারবেন একজন সফল ফ্রিল্যান্সার, আপনি ও মাসে লাখ টাকা আয় করতে পারবেন।সপ্ন বাস্তবায়ন করতে পারবেন।

আজকে এপযন্ত, আবারো দেখা হবে নতুন কোনো আপডেট নিয়ে।
ভুল হলে ক্ষমার দৃষ্টিতে দেখবেন।

যেকোন প্রয়োজনে,

ফেসবুকে আমিঃ-

Sk Shipon

  • ধন্যবাদ। 





Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button